বকশীগঞ্জে এক কৃষক খুন, আহত ১

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, জামালপুর
বাংলারচিঠি ডটকম

জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলায় অজ্ঞাত দুর্বৃত্তদের হামলায় ছমর আলী (৬০) নামের একজন কৃষক খুন হয়েছেন। হামলায় ছমর আলীর ছেলে নূর হোসেন গুরুতর আহত হয়েছেন। ১৯ জানুয়ারি রাত সোয়া ৮টার দিকে উপজেলার সাধুরপাড়া ইউনিয়নের বাঙ্গালপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত ছমর আলী ওই ইউনিয়নের বাঙ্গালপাড়া গ্রামের মৃত সাদেক আলীর ছেলে।

স্থানীয়দের উদ্ধৃতি দিয়ে সাধুরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাহমুদুল আলম বাবু বাংলারচিঠি ডটকমকে জানান, সাধুরপাড়া ইউনিয়নের বাঙ্গালপাড়া গ্রামের কৃষক ছমর আলী ও তার ছেলে নূর হোসেন ১৯ জানুয়ারি রাতে একই ইউনিয়নের কামালেরবাত্তী গ্রামের আত্মীয়বাড়ি থেকে ফিরছিলেন।

পথে রাত সোয়া ৮টার দিকে তাদের বাড়ির কাছেই দশানী নদীর পাড়ে দেশীয় ধারালো অস্ত্রহাতে অজ্ঞাত কয়েকজন দুর্বৃত্ত তাদেরকে আটক করে লাঠিপেটা এবং ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপায়। এতে ছমর আলী ঘটনাস্থলেই নিহত হন। গুরুতর আহত হন তার ছেলে নূর হোসেন (৩০)। নূর হোসেনের ডাক চিৎকারে স্থানীয়রা ঘটনাস্থলে গিয়ে গুরুতর আহত নূর হোসেনকে উদ্ধার করে বকশীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। জমিজমা নিয়ে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটে থাকতে পারে বলে নিহতের পরিবার ও স্থানীয়রা ধারণা করছেন।

এ ঘটনার খবর পেয়ে রাত ১০টার দিকে দেওয়ানগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাক সরকার ও বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মাহাবুবুল আলম পুলিশ ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

রাত পৌনে ১২টার দিকে ঘটনাস্থলে উপস্থিত বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মাহাবুবুল আলম বাংলারচিঠি ডটকমকে বলেন, নিহত ছমর আলীর মরদেহের সুরতহাল তৈরি করে রাতেই থানায় নেওয়া হচ্ছে। ২০ জানুয়ারি সকালে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি জামালপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে। জমিজমা নিয়ে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ হামলা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখছি। এ ব্যাপারে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হবে।

Views 25 ফেসবুকে শেয়ার করুন!
sarkar furniture Ad
Green House Ad