জামালপুর থেকে সিলেট জেলায় ফাস্ট ফর হাঙ্গারের বিনামূল্যে আমৃত্যু খাবার বিতরণ উদ্বোধন

সিলেটের জালালাবাদ উপজেলার কান্দিগাঁও ইউনিয়নের  ঘোপাল গ্রামে ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির কার্ডধারী দ্ররিদ্রদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির সভাপতি রাফি ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ খান সাগর ও অন্যান্য গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

নিজস্ব প্রতিবেদক, বাংলারচিঠিডটকম: ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির আওতায় কার্ডধারী দরিদ্র মানুষের মাঝে আমৃত্যু খাদ্য সহায়তা কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। এই কর্মসূচির পাঁচ বছরপূর্তি হতে চলেছে আসছে ১৬ ডিসেম্বর। ইতিমধ্যে কার্ডধারী দরিদ্রদের মাঝে ৩ লাখ ২৫ হাজার বেলার খাবার বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে।

এই কর্মসূচির পাঁচ বছরপূর্তি উপলক্ষে ২৩ নভেম্বর জামালপুর থেকে সিলেট বিভাগের সিলেট জেলায় এই কর্মসূচির কর্মপরিধির পঞ্চম জেলা হিসেবে কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। সিলেটের জালালাবাদ উপজেলার ৮ নম্বর কান্দিগাঁও ইউনিয়নের ঘোপাল গ্রামের তারেক আহমেদের দোকান নিহা ভ্যারাইটি স্টোরকে এই প্রজেক্টের সপ্তম স্থান হিসেবে উদ্বোধন এবং কার্ডধারী দরিদ্রদের মাঝে খাবার বিতরণ করা হয়েছে।

সিলেটের জালালাবাদ উপজেলার কান্দিগাঁও ইউনিয়নের ঘোপাল গ্রামে ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির  কার্ডধারী দ্ররিদ্রদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির সভাপতি রাফি ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ খান সাগর ও অন্যান্য গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম
সিলেটের জালালাবাদ উপজেলার কান্দিগাঁও ইউনিয়নের গোপাল গ্রামে ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির কার্ডধারী দ্ররিদ্রদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির সভাপতি রাফি ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ খান সাগর ও অন্যান্য গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

উদ্বোধনী দিনে ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির সভাপতি রাফি ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ খান সাগর স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সাথে নিয়ে ১৫ জন দরিদ্র নারী-পুরুষের মাঝে খাবার বিতরণ করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় ব্যবসায়ী মুনীর আহমেদ খান, মো. যাকারীয়া, জালালাবাদ ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য শাবাছ আহমেদ, সায়কা খান, দেওয়ান আজাদ (অবঃ) ও বিশেষ কৃতজ্ঞতায় গোপাল গ্রামের কৃতী সন্তান সমাজসেবক মাহদি হাসান সাজু।

সিলেটের জালালাবাদ উপজেলার কান্দিগাঁও ইউনিয়নের ঘোপাল গ্রামে ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির কার্ডধারী দ্ররিদ্রদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির সভাপতি রাফি ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ খান সাগর ও অন্যান্য গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

আর্তমানবতার সেবায় নিয়োজিত সামাজিক সংগঠন ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটির সভাপতি আইনজীবী রাফি ইসলাম জানান, সিলেটের জালালাবাদের কান্দিগাঁও ইউনিয়নসহ জামালপুর, শেরপুর, বগুড়া ও কুড়িগ্রাম জেলায় এ নিয়ে সর্বমোট ১৫০ জন দরিদ্র মানুষকে ইতিমধ্যে ফাস্ট ফর হাঙ্গার সোসাইটি থেকে কার্ড দেওয়া হয়েছে। তারা আমৃত্যু এই সংস্থা থেকে প্রতি সপ্তাহে খাবার পাবেন। ইতিমধ্যে কার্ডধারী দরিদ্রদের মাঝে ৩ লাখ ২৫ হাজার বেলার খাবার বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। সারা বাংলাদেশে এই কর্মসূচি চালু করা হবে। সমাজের স্বাবলম্বী মানুষদেরকে এই প্রজেক্টে সহযোগিতা করার জন্য উদাত্ত আহ্বান জানিয়েছেন রাফি ইসলাম।

সর্বশেষ
sarkar furniture Ad
Green House Ad