নকলায় কৃষকের ধান কেটে দিল শেরপুর জেলা পুলিশ

ধানকাটা উদ্বোধন করেন পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম।ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

শফিউল আলম লাভলু, নকলা (শেরপুর) প্রতিনিধি
বাংলারচিঠিডটকম

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে লকডাউনের মধ্যে বোরো ধান পেকে যাওয়ায় শ্রমিক সংকটে বিপাকে পড়েছে দেশের কৃষক। এমন দুর্যোগময় পরিস্থিতিতে দেশের কৃষকদের পাশে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশ পুলিশ। শেরপুর জেলা পুলিশ কৃষকের ধান কেটে বাড়িতে পৌঁছানো এমনকি মাড়াই করে গোলায় তুলে দেওয়ার কার্যক্রম শুরু করেছে।

২৩ এপ্রিল দুপুরে শেরপুরের নকলা উপজেলার উরফা ইউনিয়নের বারমাইসা গ্রামের কৃষক আবু রায়হানের ৬৫ শতাংশ জমির ধান কেটে ধানকাটা উদ্বোধন করেন পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম। এতে পুলিশ সদস্যদের সাথে অংশ নেয় স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সদস্যরা।

মদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আমিনুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম জিন্নাহ, পৌরভার মেয়র হাফিজুর রহমান লিটন, নকলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীর হোসেন শাহ, ইউপি চেয়ারম্যান রেজাউল হক হীরা, যুবলীগের আহ্বায়ক রফিকুল ইসলাম সোহেলসহ স্থানীয় সাংবাদিকরা ধানকাটার সময় উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম এ প্রতিনিধিকে বলেন, ‘লকডাউনের কারণে শ্রমিক সংকটে অনেক কৃষকই ধান কাটতে পারছেন না। অসহায় কৃষকদের মানসিকভাবে মনোবল চাঙ্গা রাখতে জেলা পুলিশের উদ্যোগে পুলিশ সদস্যসহ স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যরা স্বেচ্ছাশ্রমের ভিত্তিতে কৃষকের বোরো ধান কেটে দিচ্ছেন। বর্তমান সংকট কালে কৃষকদের মাঠের ধান ঘরে তুলতে আমরা এ কর্মসূচি হাতে নিয়েছি। এ কর্মসূচি ধান কাটা শেষ হওয়া পর্যন্ত অব্যাহত থাকবে।

Views 44 ফেসবুকে শেয়ার করুন!
sarkar furniture Ad
Green House Ad