ইসলামপুরে খাদ্য কর্মকর্তাকে এক লাখ টাকা জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক, জামালপুর ॥
জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলা খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত সংরক্ষণ ও পরিচালন কর্মকর্তা মো. হারুন অর রশিদকে অনিয়মের দায়ে এক লাখ টাকা জরিমানা অনাদায়ে সাতদিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। ২৫ জুলাই জেলা প্রশাসনের নির্বাহী হাকিম মো. ইমরানুল হক ইসলামপুর উপজেলা খাদ্যগুদামে এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা এনএসআইয়ের তথ্যের ভিত্তিতে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ইমরানুল হকের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের দল ২৫ জুলাই বেলা ১১টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত ইসলামপুর উপজেলা খাদ্যগুদামে অভিযান চালান। অভিযানের সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত চলতি সরকারি খাদ্যশস্য ক্রয় মওসুমে ইসলামপুর উপজেলা খাদ্যগুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. হারুন অর রশিদ অনিয়মের আশ্রয় নিয়ে শুধুমাত্র কাগজে কলমে চাল সংগ্রহ ও সরবরাহ দেখানো এবং ২৫০ মেট্রিক টন চাল গুদামেই মজুদ রাখার অভিযোগের সত্যতা পান। এ সময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্দেশে ভারপ্রাপ্ত খাদ্য কর্মকর্তা মো. হারুন আর রশিদকে আটক করা হয়।

পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারের রায়ে ১৯৫৬ সালের অত্যাবশ্যকীয় পণ্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ৩ ও ৬ ধারায় অত্যাবশ্যকীয় পণ্য সংরক্ষণ ও সরবরাহে অনিয়মের অভিযোগে আটক ভারপ্রাপ্ত খাদ্য কর্মকর্তা মো. হারুন অর রশিদকে এক লাখ টাকা জরিমানা অনাদায়ে সাতদিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন। পরে ওই কর্মকর্তা জরিমানার টাকা পরিশোধ করে মুক্তি পান।

নির্বাহী হাকিম মো. ইমরানুল হক ভ্রাম্যমাণ আদালতের এ অভিযানের সত্যতা নিশ্চিৎ করে বাংলার চিঠি ডটকমকে জানিয়েছেন, অভিযানের সময় পাওয়া খাদ্য গুদামে মজুদ ২৫০ মেট্রিক টন চাল ২৬ জুলাইয়ের মধ্যেই বিতরণ করে গুদাম খালি করতে নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে।

Views 42   ফেসবুকে শেয়ার করুন!
সর্বশেষ
sarkar furniture Ad
Green House Ad