জামালপুরে মাস্ক না পরায় ৮ ব্যক্তিকে জরিমানা

মাস্কপরা নিশ্চিত করতে জামালপুর শহরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
বাংলারচিঠিডটকম

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে ১১ নভেম্বর দুপুরে জামালপুর শহরের দুটি স্থানে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেছে জেলা প্রশাসন। এ সময় আইন অমান্য করে মাস্ক না পরার দায়ে আট ব্যক্তিকে ১২ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করেছেন নির্বাহী হাকিম ও এনডিসি ইবনুল আবেদীন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে সর্বস্তরের মানুষকে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করতে ১১ নভেম্বর দুপুরে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী হাকিম ও এনডিসি ইবনুল আবেদীন র‌্যাব ও পুলিশ ফোর্স নিয়ে জামালপুর শহরের প্রধান সড়কের ব্যস্ততম তমালতলা মোড় ও সকাল বাজার এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান চালান। এ সময় মাস্ক না পরার দায়ে অটোরিকশাচালক, যাত্রী, পথচারীসহ আটজন সাধারণ মানুষকে ১২ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়। ১৮৬০ সালের দন্ডবিধি ১৮৮ ও ২৬৯ ধারার আইন অমান্য করে সংক্রামক ব্যাধি ছড়ানোর অপরাধে তাদেরকে এই জরিমানা করা হয়।

একই সাথে ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী হাকিম ইবনুল আবেদীন জরিমানার দন্ডপ্রাপ্ত প্রত্যেককে একটি করে মাস্ক দেন এবং স্থানীয়দের মাঝে মাস্কের উপকারিতা ও স্বাস্থ্যবিধি সম্পর্কে সচেতন করেন। ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান চলাকালে স্থানীয় বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষদের মাঝে মাস্ক পরার হিড়িক পড়ে যায়।

এ সময় নির্বাহী হাকিম ইবনুল আবেদীন এ প্রতিবেদককে বলেন, করোনাভাইরাস মহামারি মোকাবেলায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কড়া আদেশ বাস্তবায়নে সর্বস্তরের মানুষের মাঝে স্বাস্থ্যবিধি মানা এবং মাস্কপরা নিশ্চিত করতে জেলা প্রশাসক স্যারের নির্দেশে সারা জেলায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হচ্ছে।

sarkar furniture Ad
Green House Ad