সাংবাদিক মোস্তফা মনজু’র ওপর হামলার বিচার ও সাংবাদিকদের নিরাপত্তার দাবি জানালো বকশীগঞ্জ উপজেলা প্রেসক্লাব

সাংবাদিক মোস্তফা মনজু’র ওপর হামলার বিচার ও সাংবাদিকদের নিরাপত্তার দাবিতে বকশীগঞ্জ উপজেলা প্রেসক্লাবের মানববন্ধন। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

বকশীগঞ্জ (জামালপুর) প্রতিনিধি
বাংলারচিঠিডটকম

কালের কণ্ঠের জামালপুর প্রতিনিধি ও বাংলারচিঠিডটকম এর নির্বাহী সম্পাদক মোস্তফা মনজু’র ওপর সন্ত্রাসী হামলার বিচারের দাবিতে এবং বকশীগঞ্জ উপজেলার কর্মরত সাংবাদিকদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে। বকশীগঞ্জ উপজেলা প্রেসক্লাবের আয়োজনে ৯ জুন বেলা ১১ টায় প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি হেদায়েত উল্লাহ হোসনার সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক জি এম ফাতিউল হাফিজ বাবুর সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সাধুরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাহমুদুল আলম বাবু, সাংবাদিক জি এম সাফিনুর ইসলাম মেজর, সাংবাদিক গোলাম রাব্বানী নাদিম, সাংবাদিক রাজ্জাক মাহমুদ, সাংবাদিক এস এম আশরাফুল আজম, সাংবাদিক আফজাল শরীফ, সাংবাদিক রকিবুল হাসান বিদ্রোহী, সরকার আকতার হোসেন, ইউপি সচিব শরিয়তুজ্জামান, প্রকৌশলী আনিছুর রহমান শাহীন, প্রকৌশলী নুরুল আমিন প্রমুখ।

মানববন্ধনে বকশীগঞ্জসহ সারাদেশের সাংবাদিকদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করাসহ সাংবাদিকদের নির্বিঘ্নে পেশাগত দায়িত্ব পালনের পরিবেশ তৈরির দাবি জানান। একই সঙ্গে জামালপুর জেলাসহ বকশীগঞ্জের সাংবাদিকদের উপর হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়।

প্রসঙ্গত, গত ২৮ মে দুপুরে জামালপুর সদর সাব-রেজিস্ট্রার কার্যালয় প্রাঙ্গণে জাল কাগজপত্রের মাধ্যমে জমির দলিল নিবন্ধনের তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে সাংবাদিক মোস্তফা মনজুর ওপর সন্ত্রাসী হামলা হয়। ওই হামলার ঘটনায় মোস্তফা মনজু বাদী হয়ে হামলার মূলহোতা স্ট্যাম্পভেন্ডার ও জামালপুর পৌরসভার কাউন্সিলর হাসানুজ্জামান খান রুনুসহ নয়জনকে আসামি করে জামালপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলাটির আসামিরা আদালত থেকে জামিন নিয়ে মোস্তফা মনজুসহ আন্দোলনরত জামালপুর প্রেসক্লাবের সাংবাদিকনেতৃবৃন্দ ও অন্যান্য সকল সাংবাদিকদের প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে আসছেন। এ ধরনের হুমকিতে সাংবাদিক মোস্তফা মনজুসহ জেলায় কর্মরত ৪৮ জন সাংবাদিক পৃথকভাবে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে জামালপুর সদর থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছেন।

sarkar furniture Ad
Green House Ad