নরুন্দি ইউপি চেয়ারম্যান শাহজাহান জেলহাজতে

মো. শাহজাহান আলী সরকার

নিজস্ব প্রতিবেদক, জামালপুর ॥
জামালপুর সদর উপজেলার নরুন্দি ইউনিয়নের চাঞ্চল্যকর মুয়াল্লিম আব্দুল হক হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার সন্দেহভাজন আসামি নরুন্দি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. শাহজাহান আলী সরকারকে ৩১ জুলাই আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠিয়েছে সিআইডি। ৩০ জুলাই রাতে সিআইডি তাকে গ্রেপ্তার করে। ৩১ জুলাই তাকে আদালতে হাজির করে পাঁচদিনের রিমান্ডের আবেদন জানালে আদালত আগামী ৫ আগস্ট শুনানির দিন ধার্য্য করেছে।

সিআইডি সূত্রে জানা গেছে, মুয়াল্লিম আব্দুল হক হত্যা মামলার সন্দেহভাজন আসামি নরুন্দি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. শাহজাহান আলী সরকারের অবস্থান নিশ্চিত হওয়ার পর সিআইডি ২৯ জুলাই রাত দু’টা থেকে অভিযান পরিচালনা করে ৩০ জুলাই রাতে তাকে গ্রেপ্তার করে। ৩১ জুলাই দুপুরে তাকে জামালপুরের অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. মাহবুবুর রহমানের আদালতে হাজির করা হয়। একই সাথে মামলাটির অন্যান্য সন্দেহভাজন আসামিদের অবস্থান নির্ণয় ও আরো তদন্তের জন্য তাকে পাঁচদিনের রিমান্ডের আবেদন করা হয়। আদালত আগামী ৫ আগস্ট রিমান্ডের আবেদনের শুনানির দিন ধার্য্য করেছেন।

উল্লেখ্য, মুয়াল্লিম আব্দুল হক গত বছরের ১২ মে বিকেলে নরুন্দি ইউনিয়নের মহিশুরা গ্রামে তাঁর নিজ বাড়িতে যান। ওইদিন রাতেই তিনি নিখোঁজ হন। তাঁর সঙ্গে হজযাত্রীদের কাছ থেকে সংগৃহীত নগদ ১০ লাখ টাকা ছিল। তিনি টাকাগুলোর বিনিময়ে ডলার সংগ্রহ করার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়েছিলেন। নিখোঁজের চারদিন পর ১৬ মে সকালে স্থানীয় মানিকার চরে ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করে নরুন্দি তদন্ত কেন্দ্রের পুলিশ। হত্যাকারীরা লাশ গুম করার উদ্দেশে সিমেন্টের দুটি খুঁটির সঙ্গে তাকে বেঁধে পানিতে ডুবিয়ে রেখেছিল।

এ ঘটনায় নিহত আব্দুল হকের স্ত্রী মরিয়ম আক্তার বাদী হয়ে গত বছরের ১৬ মে জামালপুর সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় সন্দেহভাজন আসামি হিসেবে নরুন্দি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. শাহজাহান আলী সরকার ও আব্দুল হকের ব্যবসায়ী অংশীদার শহরের বাগেরহাটা বটতলা এলাকার অবসরপ্রাপ্ত সেনা সদস্য চাঁন মিয়াসহ অজ্ঞাত কয়েক জনকে আসামি করা হয়। ওই ঘটনার পর থেকে চাঁন মিয়া পলাতক রয়েছেন। মামলা দায়েরের তিন মাস পর তা সিআইডির জামালপুর কার্যালয়ে স্থানান্তরিত হয়।

সিআইডির জামালপুর কার্যালয়ের পুলিশ পরিদর্শক এস এম আনোয়ার নাসিম বাংলার চিঠি ডটকমকে বলেন, ‘আব্দুল হক হত্যা মামলাটি সিআইডিতে আসার পর অধিক গুরুত্ব দিয়ে প্রকৃত রহস্য উদঘাটন ও প্রকৃত খুনীদের শনাক্ত করতে আমরা তদন্ত করছি। মামলাটির আরো তদন্তের জন্য গ্রেপ্তার মো. শাহজাহান আলী সরকারকে পাঁচদিনের রিমান্ডের আবেদন করা হলে আদালত আগামী ৫ আগস্ট রিমান্ডের আবেদনের শুনানির দিন ধার্য্য করেছে। আসামি শাহজাহান আলী সরকারকে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।’

Views 46   ফেসবুকে শেয়ার করুন!
সর্বশেষ
sarkar furniture Ad
Green House Ad