রাশিয়ান সাংবাদিক আরকাদিকে গুলি করে হত্যা

Russia-Ar-Khadiবাংলারচিঠি ডটকম ডেস্ক॥
ইউক্রেনে আততায়ীর গুলিতে নিহত হয়েছেন রাশিয়ান সাংবাদিক আরকাদি বাবচেনকোকে। তিনি পুতিনের কঠোর সমালোচক ছিলেন। ২০১৬ সালে এক রাশিয়ান সামরিক বিমান বিধ্বংসের ঘটনা নিয়ে লেখালিখির পর আরকাদি বেশ কয়েকবার মৃত্যুর হুমকি পাওয়ার পর দেশ ছাড়েন।

৩০ মে রাজধানী কিয়েভে নিজ বাসভবনের কাছেই তাকে গুলি করে হত্যা করা হয় বলে জানায় পুলিশ।খবর বিবিসির।

৪১ বছর বয়সী আরকাদি বাবচেনকোকে বাসার সামনে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পায় তার স্ত্রী। পরে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সময় অ্যাম্বুলেন্সেই মারা যান তিনি।

রাশিয়া ছেড়ে প্রথমে প্রাগে গেলেও পরবর্তীতে কিয়েভে এসে থিতু হন। ক্রেমলিন প্রশাসকের কড়া সমালোচক ছিলেন আরকাদি। পুতিনের শাসনের সমালোচনায় নিয়মিত সোচ্চার ছিলেন তিনি।

একটা সময় যুদ্ধক্ষেত্রেও গিয়েও সাংবাদিকতা করেছেন তিনি। ইউক্রেনে তিনি এটিআর টিভি চ্যানেলের প্রেজেন্টার ছিলেন।

ইউক্রেন পুলিশ জানিয়েছে, পেছন থেকে তাকে একাধিক গুলি করা হয়েছে।

কিয়েভের পুলিশ প্রধান চীফ অ্যান্ড্রি জানান, পেশাগত কার্যক্রমের কারণেই তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

ইউক্রেনের এক আইনজীবী অ্যান্টন হ্যারাশেনকো জানান, আরকাদি রুটি কেনার জন্য বাসার বাইরে গিয়েছিল। হত্যাকারীরা তার বাসার পাশেই লুকিয়ে ছিল। এদিকে ইউক্রেন মন্ত্রীসভা নিহতের পরিবার, বন্ধু ও স্বজনদের প্রতি সমবেদনা জানায়।

রাশিয়ার আগ্রাসনের বিরুদ্ধে কথা বলা আরকাদিকে ‘ইউক্রেনের সত্যিকারের একজন বন্ধু’ বলে আখ্যায়িত করেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির গ্রসম্যান।তিনি বলেন, হত্যাকারীদের অবশ্যই শাস্তি পেতে হবে।
সূত্র : ডেইলি বাংলাদেশ।