গ্রামীণ ব্যাংক কর্মকর্তাদের মহাসমাবেশ

গ্রামীণ ব্যাংকের কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা মানববন্ধন করেন। ছবি : বাংলারচিঠি ডটকম

নিজস্ব প্রতিবেদক, জামালপুর
বাংলারচিঠি ডটকম

পেনসন সুবিধা দেওয়ার দাবিতে জামালপুরে মানববন্ধন ও মহাসমাবেশ কর্মসূচি পালন করেছে গ্রামীণ ব্যাংকের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারী সমিতি। ২ নভেম্বর সকালে জামালপুর জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে এ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

গ্রামীণ ব্যাংক অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারী সমিতির জামালপুর জেলা শাখার সভাপতি মো. ফরিদ উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সমিতির কেন্দ্রীয় সভাপতি শামছুল আরেফিন। এতে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কামাল উদ্দিন ও মো. শহিদুল ইসলাম, জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মো. নুরুল ইসলাম, অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইদ্রিস আলী, আলী হোসেন, ফরহাদ আলী, উদয়ন ইসলাম খান ও সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা জানান, ২০১৬ সালের ১ ফেব্রুয়ারি অর্থ মন্ত্রণালয়ের জারিকৃত সরকারি প্রজ্ঞাপনে সরকারি-আধা সরকারি, রাষ্ট্রয়াত্ব ব্যাংক, অর্থলগ্নি প্রতিষ্ঠান এবং স্ব-শাসিত সংস্থাগুলোয় অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও কর্মচারী ও পারিবারিক পেনসনভোগীদের বছরে দুটি করে উৎসব বোনাস, বৈশাখী ভাতা ও প্রতিমাসে চিকিৎসাভাতা দেওয়ার বিধান রয়েছে। কিন্তু ওই প্রজ্ঞাপনের আলোকে গ্রামীণ ব্যাংকের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও কর্মচারী ব্যতীত সবাই এসব সুযোগসুবিধা ভোগ করছে। গ্রামীণ ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ওই প্রজ্ঞাপন উপেক্ষা করায় সারা দেশে প্রায় ১৫ হাজার কর্মকর্তা ও কর্মচারী চাকরি থেকে অবসরে গিয়েও সরকারি সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন না। তারা পরিবার পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছেন। সমাবেশ থেকে তারা তাদের দাবি পূরণে সরকারের সুদৃষ্টি কামনা করেন। তাদের দাবি না মানা হলে বৃহত্তর আন্দোলনের পাশাপাশি উচ্চ আদালতে মামলা দায়ের করবেন বলেও তারা জানান।

সমাবেশের আগে তারা শিল্পকলা একাডেমির সামনে মানববন্ধনে অংশ নেন। গ্রামীণ ব্যাংকের জামালপুর ও শেরপুর জেলার দুই শতাধিক অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও কর্মচারী মানববন্ধন ও মহাসমাবেশে অংশ নেন।

  ফেসবুকে শেয়ার করুন!
সর্বশেষ
sarkar furniture Ad
Green House Ad