আ্যাশেজ : দ্বিতীয় ইনিংসেও খাজার সেঞ্চুরি; ইংল্যান্ডের টার্গেট ৩৮৮

বাংলারচিঠিডটকম ডেস্ক ❑ প্রায় আড়াই বছর পর অস্ট্রেলিয়া দলে ফিরে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিডনি টেস্টের প্রথম ইনিংসে সেঞ্চুরি করেছিলেন বাঁ-হাতি ব্যাটার উসমান খাজা। এমন ফিরে আসাকে রাজকীয় প্রত্যাবর্তনে রুপ দিলেন খাজা। সিডনি টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসেও সেঞ্চুরি করেছেন খাজা। তার সেঞ্চুরিতে দ্বিতীয় ইনিংসে ৬ উইকেটে ২৬৫ রানে ইনিংস ঘোষনা করেছে অসিরা। জয়ের জন্য ৩৮৮ রানের টার্গেট পেয়েছে অস্ট্রেলিয়া। সেই টার্গেটে খেলতে নেমে চতুর্থ দিন শেষে বিনা উইকেটে ৩০ রান করেছে ইংল্যান্ড।

সিরিজের চতুর্থ টেস্ট জিততে ম্যাচের পঞ্চম ও শেষ দিনে ১০ উইকেট হাতে নিয়ে ৩৫৮ রান করতে হবে ইংল্যান্ডকে। অন্য দিকে সিরিজের লিড ৪-০ করতে শেষ দিনে ইংলিশদের ১০ উইকেট তুলে নিতে মরিয়া থাকবে অস্ট্রেলিয়ার বোলাররা।

২০১৯ সালের আগস্টে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে সর্বশেষ খেলেছিলেন খাজা। এবারের অ্যাশেজের দলে সুযোগ হলেও, প্রথম তিন টেস্টের একাদশে সুযোগ হয়নি তার। প্রথম টেস্টে হেডের ১৫২ রান খাজার একাদশে সুযোগ পথ রুদ্ধ করে দেয়।

তবে তৃতীয় টেস্টের পর করোনায় আক্রান্ত হন হেড। এতে চতুর্থ টেস্টে সুযোগ মেলে খাজার। সুযোগ পেয়েই প্রথম ইনিংসে ১৩৭ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন তিনি। দ্বিতীয় ইনিংসে যখন ৮৬ রানে ৪ উইকেট হারায় অস্ট্রেলিয়া। তখন ক্যামেরুন গ্রিনের সাথে দলের হাল ধরে ১৭৯ রান যোগ করেন খাজা। এই জুটি গড়ার পথেই ৪৫ ম্যাচের টেস্ট ক্যারিয়ারে ১০ম সেঞ্চুরি তুলে নেন খাজা।

১৩১ বলে তিন অংকে পা দিয়ে রেকর্ড বইয়ে নাম তুলেন খাজা। অ্যাশেজের ইতিহাসে নবম ও অসিদের ষষ্ঠ খেলোয়াড় হিসেবে এক ম্যাচের দুই ইনিংসেই সেঞ্চুরি করলেন তিনি। সিডনিতে তৃতীয় খেলোয়াড় হিসেবে টেস্টের দুই ইনিংসে সেঞ্চুরি করে দেখালেন খাজা। বিশে^র দশম খেলোয়াড় হিসেবে ব্যাটিং অর্ডারে পাঁচ বা তার নিচে ব্যাট হাতে নেমে টেস্টের দুই ইনিংসে সেঞ্চুরির নজির গড়লেন খাজা।

এই ইনিংসে খাজা ১৩৮ বলে ১০টি চার ও ২টি ছক্কায় অপরাজিত ১০১ রান করেন। গ্রিন করেন ১২২ বলে ৭৪। ৬ উইকেটে ২৬৫ রানে ইনিংস ঘোষনা করে অস্ট্রেলিয়া।

এর আগে দিনের প্রথম সেশনে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ২৯৪ রানে অলআউট হয় ইংল্যান্ড। তৃতীয় দিন শেষে জনি বেয়ারস্টোর অপরাজিত ১০৩ রানের কল্যাণে ৭ উইকেটে ২৫৮ রান করেছিলো ইংলিশরা। বেয়ারস্টো ১১৩ রানে থামেন। ১৫৮ বল খেলে ৮টি চার ও ৩টি ছক্কা মারেন বেয়ারস্টো। অস্ট্রেলিয়ার স্কট বোল্যান্ড ৪টি অধিনায়ক প্যাট কামিন্স-নাথান লিঁও ২টি করে উইকেট নেন।

৩৮৮ রানের জবাবে চতুর্থ দিনের শেষ ভাগে ১১ ওভার ব্যাট করার সুযোগ পায় ইংল্যান্ড। বিনা উইকেটে ৩০ রান তুলেছে তারা। জ্যাক ক্রলি ২২ ও হাসিব হামিদ ৮ রানে অপরাজিত আছেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :
অস্ট্রেলিয়া : ৪১৬/৮ডি ও ২৬৫/৬ডি, ৬৮.৫ ওভার (খাজা ১০১*, লাবুশেন ২৯, লিচ ৪/৮৪)।
ইংল্যান্ড : ২৯৪/১০ ও ৩০/০, ১১ ওভার (ক্রলি ২২*, হাসিব ৮* ২/২৫)।

sarkar furniture Ad
Green House Ad