মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাড়াতে ‘অপারেশন জ্যাকপট’ নামে সিনেমা নির্মাণ করছে সরকার

বাংলারচিঠিডটকম ডেস্ক ❑ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাড়াতে ১৯৭১ সালে ঘটে যাওয়া নানা ঘটনা নিয়ে ‘অপারেশন জ্যাকপট’ নামে সিনেমা নির্মাণ করছে সরকার, এমনটাই জানিয়েছে বীর মুক্তিযোদ্ধা শাজাহান খান।

২৬ ফেব্রুয়ারি সকালে মাদারীপুর সার্কিট হাউসে খ. ম. মুরশীদ পরিচালিত মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে পূর্ণদৈঘ্য বাংলা চলচিত্র ‘বাংলার দর্পণ’-এর মহরত অনুষ্ঠানে তিনি প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

এ সময় শাজাহান খান আরো বলেন, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা যদি বুকে ধারণ না করে তাহলে কোন বাঙালি বাংলাদেশের স্বাধীনতার কথা ভাবতে পারেনা। আওয়ামী লীগ নির্বাচনের আগে ইশতেহারে ঘোষণা দিয়েছিল মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি বুকে ধারণ করতে হবে। এজন্য দেশের মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে চলচিত্র নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। অনেক আগেই এ উদ্যোগ নেয়া হলেও নানাভাবে বাধার সম্মুখীন হতে হয়েছে।

শাজাহান খান বলেন, বাঙালি নৌ-কমান্ডরা ১৯৭১ সালের ১৫ আগস্টে দেশের খুলনা, মংলা, চট্টগ্রাম ও চাঁদপুর এ ৪টি নৌবন্দরে একযোগে পাক সেনাদের ২৬টি জাহাজ ডুবিয়ে দেয়। এ অপারেশনের নাম ছিল ‘অপারেশন জ্যাকপট’। অপারেশনে একজনও বাঙালি মারা যায়নি। নৌ-কমান্ডদের সকল সদস্যরা সফল অপারেশন করেছে। এ ইতিহাস অনেকেই জানেনা। মুক্তিযুদ্ধের এ ইতিহাসকে জাগ্রত করতেই ‘অপারেশন জ্যাকপট’ নামে সিনেমা নির্মাণ করা হচ্ছে। সিনেমাটিতে প্রায় ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে হতে পারে ধারণা করা হচ্ছে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন মাদারীপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ বেবতি মোহন সরকার, স্থানীয় সরকার অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী বাবুল আখতার, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা শাহজাহান হাওলাদার, চলচিত্র পরিচালক ও নাট্যকার খ.ম. মুরশীদসহ অনেকেই।

সর্বশেষ
sarkar furniture Ad
Green House Ad