মাদারগঞ্জে যুবককে জুতার মালা পরানোর অভিযোগে ৭ মাতাব্বর গ্রেপ্তার

যুবককে জুতার মালা পরানোর অভিযোগে গ্রেপ্তার ৭ মাতাব্বর। ছবি : বাংলারচিঠিডটকম

জাহিদুর রহমান উজ্জল, মাদারগঞ্জ (জামালপুর) প্রতিনিধি
বাংলারচিঠিডটকম

চাঁদা না পেয়ে মিথ্যা মানহানীর অভিযোগ তুলে সিদ্দিক আকন্দ নামের এক যুবককে গলায় জুতার মালা দিয়ে হাট বাজারসহ পুরো গ্রাম ঘুরানোর অভিযোগে অবশেষে মাদারগঞ্জ মডেল থানা পুলিশ ৭ গ্রাম্য মাতাব্বরকে গ্রেপ্তার করেছে।

জামালপুরের মাদারগঞ্জ উপজেলার জোড়খালী ইউনিয়নের হাটমাগুড়া গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মাদারগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রফিকুল ইসলাম।

মামলা ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত ১১ জুলাই ওই গ্রামের প্রভাবশালী খানবাড়ির লোকজন সিদ্দিক আকন্দর বিরুদ্ধে এক নারীর ইজ্জত লুন্ঠনের অভিযোগ তুলে। সেই সাথে তার কাছে ১ লাখ ৫০ হাজার টাকা চাঁদা চায়। চাঁদা না দিলে তাকে দোষী করে গ্রামে অপপ্রচার চালায়। গত ২০ জুলাই হাটমাগুড়া গ্রামের নওশের আলীর বাড়িতে জোরপূর্বক শালিশী বৈঠকের আয়োজন করে। ওই বৈঠকে সিদ্দিক আকন্দ নিজেকে নির্দোষ দাবি করলেও ওই শালিশের মাতাব্বররা তাকে মারপটি করে এবং গলায় ছেড়া জুতা দিয়ে হাটমাগুড়া বাজার ও পুরো গ্রাম ঘুরিয়ে নিয়ে বেড়ায়।

পরদিন সিদ্দিক আকন্দ থানায় ওই গ্রামের ২২ জন মাতাব্বরকে বাদী করে মামলা দায়ের করলে পুলিশ ২২ জুলাই ভোররাতে ওই গ্রামের উজ্জল খান গেন্দা (৫০), বাদশা খান (৫২), জুলহাস খান (৪৫), আজম খান (৪৮), মোনায়েম খান (৪৫), মোখলেছুর রহমানকে (৩৫) গ্রেপ্তার করে। তাদেরকে জেলা হাজতে পাঠানো হয়েছে।

Views 101 ফেসবুকে শেয়ার করুন!
sarkar furniture Ad
Green House Ad