মোজাম্বিক ও জিম্বাবুয়েতে ঘূর্ণিঝড়ে ১২০ জনেরও বেশি লোকের প্রাণহানি

বাংলারচিঠি ডটকম ডেস্ক : মোজাম্বিক ও প্রতিবেশী দেশ জিম্বাবুয়েতে ঘূর্ণিঝড় ইদায়ের আঘাতে সৃষ্ট আকস্মিক বন্যায় ১৭ মার্চ ১২০ জনেরও বেশি লোকের প্রাণহানি এবং এতে আরো অনেকে নিখোঁজ রয়েছে। খবর এএফপির।

মোজাম্বিক কর্তৃপক্ষ জানায়, মধ্য আফ্রিকার দেশটিতে ভয়াবহ ঘূর্ণিঝড়ের আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫২ জনে দাঁড়িয়েছে। অপরদিকে জিম্বাবুয়ে জানায়, দেশটির পূর্বাঞ্চলীয় বিভিন্ন এলাকায় এ ঝড়ের আঘাতে ৬৫ জন নিহত হয়েছে। শুক্র ও শনিবার এ অঞ্চলজুড়ে ঘূর্ণিঝড়টি বয়ে যায়।

মোজাম্বিকের পরিবেশ মন্ত্রী সেলসো কোরেয়া বিরা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এএফপিকে বলেন, ‘আমি মনে করি এটি হচ্ছে মোজাম্বিকে ঘটে যাওয়া সবচেয়ে বড় প্রাকৃতিক দুর্যোগ। ঘূর্ণিঝড়টি দেশটির সবকিছু লন্ডভন্ড করে দিয়েছে। এখন আমাদের সবচেয়ে অগ্রাধিকার হচ্ছে মানুষকে বাঁচানো।’
বৃহস্পতিবার রাতে জিম্বাবুয়ের দিকে ধেয়ে যাওয়া ইদায় ঘূর্ণিঝড়টি মোজাম্বিকে প্রথম আঘাত হানে।

এ ঝড়ের আঘাতে জিম্বাবুয়ের পূর্বাঞ্চলীয় চিমানিমানি জেলার সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়। আকস্মিক বন্যার কারণে সেখানে বহু ঘরবাড়ি ও সেতু ভেসে যায়।

অধিক ক্ষতিগ্রস্ত অনেক এলাকাতে এখনও প্রবেশ করা যাচ্ছে না। প্রচন্ড বৃষ্টিপাতের কারণে উদ্ধার কার্যক্রমও ব্যাহত হচ্ছে।

চিমানিমানির আইনপ্রণেতা জোসহোয়া সাকো টেলিফোনে এএফপিকে বলেন, এ প্রাকৃতিক দুর্যোগে এখন পর্যন্ত আমরা ৬৫ জনের মৃত্যুর খবর পেয়েছি। এ ঘটনায় এখনও ১৫০ থেকে ২০০ জন লোক নিখোঁজ রয়েছে। সূত্র : বাসস

Views 25 ফেসবুকে শেয়ার করুন!
sarkar furniture Ad
Green House Ad