বর্তমান সরকারের অবদানে তৈরি হচ্ছে মডেল মসজিদ

মসজিদবাংলারচিঠি অনলাইন ডেস্ক॥
আওয়ামীলীগ সরকারের মেগা প্রকল্পের গুরুত্ব অনুযায়ী সর্বাধিক গুরুত্ব পেয়েছে প্রতিটি জেলায় মেগা মসজিদ নির্মাণ। প্রথমে ঢাকাসহ অন্যান্য বিভাগীয় শহরগুলোতে মোট ১০টি মসজিদ নির্মাণ করা হবে। পর্যায়ক্রমে তা জেলা ও উপজেলায় একটি করে মোট ৫৬০টি মডেল মসজিদ নির্মাণ করা হবে। এর ফলে ধর্মীয় প্রচার ও প্রসার সুষ্ঠুভাবে হবে। দূর হবে ধর্মীয় গোড়ামি।

সরকারের ধর্ম মন্ত্রণালয় জানায়, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের তত্ত্বাবধানে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রগুলো নির্মাণ করবে গণপূর্ত অধিদপ্তর। ৬৪টি জেলা সদর ও পাঁচটি সিটি কর্পোরেশনে চারতলা বিশিষ্ট এবং উপজেলা সদরে তিনতলা বিশিষ্ট মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ করা হবে। উপকূলীয় অঞ্চলের মসজিদ ও ইসলামিক সংস্কৃতিক কেন্দ্রগুলোর নিচতলা ফাঁকা রাখা হবে। যাতে দুর্যোগের সময় সাইক্লোন সেন্টার হিসেবে ব্যবহার করা হয়। থাকছে নারী পুরুষ নামাজ পড়ার আলাদা ব্যবস্থা। ইসলামিক বিষয়ক জ্ঞান আহরণ ও গবেষকদের গবেষণা করার জন্য থাকছে সুব্যবস্থা। প্রতিবছর ১৪ হাজার শিক্ষার্থীর কোরআন হিফজ করার সুবিধা ছাড়াও ১৬ হাজার ৮০০ শিশুর প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষা অর্জনের ব্যবস্থাও রাখা হবে। এ ছাড়াও ২৪০ জন দেশি- বিদেশি অতিথিদের থাকছে থাকা খাবার ব্যবস্থা, মৃতদেহ গোসলের ব্যবস্থা, হজযাত্রীদের প্রশিক্ষণসহ ধর্মীয় যাবতীয় ব্যবস্থা।

ধর্ম মন্ত্রণালয়ের এক সূত্র থেকে জানা যায়, দেশে প্রায় ৩ লাখ মসজিদ আছে যেগুলো স্থানীয় জনগণের আর্থিক সহায়তায় প্রতিষ্ঠিত ও পরিচালিত। আওয়ামী লীগ সরকার নির্বাচন ইশতেহারে বলেছিল প্রতিটি জেলা উপজেলায় একটি করে মডেল মসজিদ নির্মাণ করবে। তার বাস্তবায়নই দেখছে দেশের মানুষ বর্তমানে।
সূত্র : বাংলার আমরা।