সিরিয়া থেকে ‘দূরদর্শিতার’ সাথে সৈন্য প্রত্যাহার করা হবে

বাংলারচিঠি ডটকম ডেস্ক॥
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ৭ জানুয়ারি বলেছেন, ইসলামিক স্টেট গ্রুপের সঙ্গে লড়াই শেষ হয়ে যায়নি। তাই সিরিয়া থেকে ‘দূরদর্শিতার’ সাথে সৈন্য প্রত্যাহার করা হবে।

তিনি টুইটারে জানান, ‘আমরা যথাযথভাবেই সৈন্য প্রত্যাহার করে নেবো এবং একই সাথে আইএসআইএস এর বিরুদ্ধে লড়াইও চালিয়ে যাবো। এ ছাড়া প্রয়োজনীয় সব ধরনের পদক্ষেপও নেয়া হবে।’

এর আগে ট্রাম্প আইএস গ্রুপ ধ্বংস হয়ে গেছে এবং এজন্যই তিনি সিরিয়া থেকে সৈন্য প্রত্যাহার করতে চান বলে মন্তব্য করার পর তার দেশের অভ্যন্তর ও মিত্র দেশগুলোর চাপে পড়েন।

জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জন বল্টনের ইসরাইল সফরের পর ট্রাম্পের এই ঘোষণাটি এলো।

৬ জানুয়ারি ইসরাইল সফরকালে বল্টন ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুকে আস্বস্ত করেন যে, ‘আইএসআইএসকে সম্পূর্ণভাবে ধ্বংস না করা পর্যন্ত’ মার্কিন সৈন্য প্রত্যাহার করা হবে না। খবর বার্তা সংস্থা এএফপি’র।

হোয়াইট হাউস জানায়, ফোনালাপে ট্রাম্প ও ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ‘আইএসআইএসকে ধ্বংসের পাশাপাশি একটি শক্তিশালী, সর্বসম্মত ও সমন্বিতভভাবে মার্কিন সৈন্য প্রত্যাহারের পরিকল্পনার ব্যাপারে যুক্তরাষ্ট্র ও ফ্রান্স তাদের প্রতিশ্রুতির কথা বলেন।’

এতে আরো বলা হয়, ‘সিরিয়ায় আর কোন রাসায়নিক অস্ত্রের ব্যবহার বরদাস্ত করা হবে না বলে তারা পুনরুল্লেখ করেন।’

মার্কিন পরাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পোম্পেও বলেন, তিনি ফ্রান্সের কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলেছেন।

মধ্যপ্রাচ্য সফরের প্রাক্কালে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা অবশ্যই তাদের উদ্বেগকে বিবেচনায় রাখব। যুক্তরাষ্ট্র কি করছে তা সবাই বুঝছে।’
সূত্র : বাসস

sarkar furniture Ad
Green House Ad