বকশীগঞ্জে বাল্যবিয়ে বন্ধ

বকশীগঞ্জ (জামালপুর) প্রতিনিধি
বাংলারচিঠি ডটকম

জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেয়েছে শিপা আক্তার (১৫)। ৫ নভেম্বর সন্ধ্যায় তিনি বাল্যবিয়েটি বন্ধ করে দেন।

শিপা আক্তার বকশীগঞ্জ সদর ইউনিয়নের জিগাতলা গ্রামের আবদুল বারেকের মেয়ে। সে তার মামা সহিজল হকের বাড়িতে থাকতো।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সাধুরপাড়া ইউনিয়নের মধ্য ধাতুয়া কান্দা গ্রামের খুশু মিয়ার সাথে জিগাতলা গ্রামের আবদুল বারেকের মেয়ে শিপা আক্তারের বিয়ের ঠিক করা হয়। তার মামা সহিজল হক শিপার বিয়ে উপলক্ষে ৫ নভেম্বর সকল আয়োজন সম্পন্ন করলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সাবিনা ইয়াসমীন ও সুপারাইজার সুুুশান্তত চক্রবর্তী বিয়ে বাড়িতে হাজির হয়ে বাল্যবিয়েটি বন্ধ করে দেন।

উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সাবিনা ইয়াসমীন জানান, আমরা বাল্যবিয়ে বন্ধে তৎপর রয়েছি। পাশাপাশি জনসচেতনতা বৃদ্ধির জন্য সামাজিক আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছি। সবার সহযোগিতায় বাল্যবিয়ে মুক্ত বকশীগঞ্জ উপজেলা ঘোষণা করা হবে।

sarkar furniture Ad
Green House Ad